বৃহস্পতিবার, ২৮ মে ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
Sex Cams

বড়লেখায় মহিষ উদ্ধারে তীর-ধনুক নিয়ে অর্ধশতাধিক ভারতীয় নাগরিকের মহড়া



মৌলভীবাজার প্রতিনিধি : মৌলভীবাজারের বড়লেখা সীমান্তের ২০/২৫ কিলোমিটার অভ্যন্তরে চোরাই মহিষ উদ্ধারের নামে বুধবার সকালে অবৈধ অনুপ্রবেশ করে তীর-ধনুক সহকারে মহড়া দিয়েছে অর্ধশতাধিক ভারতীয় নাগরিক। পরে বিজিবি ও পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে তারা সটকে পড়ে। এলাকাবাসী, বিজিবি ও থানা পুলিশ সূত্র জানায়, বুধবার সকাল সাড়ে ৭টায় উপজেলার দক্ষিণ শাহবাজপুর ইউনিয়নের দেউল গ্রামে অর্ধশতাধিক ভারতীয় নাগরিক (সীমান্তের ওপারের মণিপুরী বস্তির বাসিন্দা) তীর-ধনুক নিয়ে দুপুর পর্যন্ত মহড়া দেয়। তাদের দু’টি মহিষ চুরি হয়েছে বলে স্থানীয় লোকজনকে জানায়। এ সময় তারা জোরপূর্বক ২টি মহিষ নিয়ে যেতে উদ্যত হলে গ্রামবাসীর সাথে বাক-বিত-া হয়। ভারতীয় লোকজনের স্বসস্ত্র মহড়ায় স্থানীয়দের মধ্যে আতংক ছড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে থানা পুলিশ ও বিজিবি ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে অনুপ্রবেশকারীরা সটকে পড়ে। পরে বিজিবি সদস্যরা অফিসবাজার এলাকা থেকে ২ টি মহিষ আটক করেন।
সীমান্ত সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, অবৈধ অনুপ্রবেশকারীরা ভারতে ফিরে যায়নি। সীমান্তের অভ্যন্তরেই তারা অবস্থান করছে। রাতের আঁধারে এলাকায় হামলা চালানোর আশংকা করছেন এলাকাবাসী।
এ ব্যাপারে বিজিবি’র লাতু কোম্পানী কমা-ার সুবেদার আব্দুল কুদ্দুছ মহিষ উদ্ধারের নামে ভারতীয় নাগরিকের অবৈধ অনুপ্রবেশের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে মহিষগুলা আটক রাখা হয়েছে। বিএসএফ এগুলো ভারতের দাবি করলে ফেরত দেওয়ার ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
বড়লেখা থানার সেকে- অফিসার এসআই দীলিপ কান্ত নাথ জানান, স্থানীয় লোকজন পুলিশকে জানিয়েছে ৬০/৭০ জন ভারতীয় নাগরিক তীর-ধনুক নিয়ে অবৈধভাবে বাংলাদেশে ঢুকে পড়েছে। ঘটনাস্থলে পৌঁছে ভারতীয় নাগরিক না পেলেও পুলিশ তাদের ফেলে যাওয়া ২/৩টি তীর-ধনুক উদ্ধার করেছে।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত