মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ১০ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

মনু নদীর বাঁধে ভাঙ্গন : মসজিদ নদীগর্ভে বিলীন : ঝুঁকির মুখে ৫ গ্রাম



m.b pic nodi vangonজালাল আহমদ : মৌলভীবাজারের রাজনগর উপজেলায় মনু নদীর বাঁধে ভাঙ্গনে নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে মসজিদ। ঝুঁকির মুখে রয়েছে ৫ গ্রামের মানুষ। সরেজমিন রোববার (১৯ মে) বিকেলে উপজেলার মনসুরনগর ইউনিয়নের প্রেমনগর গ্রামের মনু নদীর বাঁধে গেলে উপস্থিত এলাকাবাসী জানান, আব্দুল কাইয়ুম ও আব্দুল মন্নাফ এর বাড়ির সম্মুখে গত বছর থেকে এ স্থানটিতে ভাঙ্গন শুরু হয়। স্থানীয় পাঞ্জেগানা মসজিদটি ঝুঁকির মুখে পড়ায় পরিত্যক্ত ঘোষণা করে মসজিদ কমিটি এটি তালাবদ্ধ করে রাখে। প্রবল বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলের কারণে গত শুক্রবার দিবাগত রাতে ২০ ফুট প্রতিরা বাঁধসহ নদীগর্ভে মসজিদটি বিলীন হয়ে যায়। প্রতিরা বাঁধ ভাঙ্গনের ফলে যে কোন মুহুর্তে পানি বৃদ্ধি পেয়ে মনু নদী প্রকল্প বাঁধের ভিতরে বসবাসকারী গোবিন্দশ্রী, শ্বাসমহল, মালিকোণা, দণি আশ্রাকাপন ও প্রেমনগর এলাকার লোকজন পানিবন্দি হওয়ার আশংকায় রয়েছেন।
এ ব্যাপারে পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী আজিজ মোহাম্মদ চৌধুরী জানান, খবর পেয়ে শনিবার সকাল ১০টায় জরুরী মেরামতের জন্য বালুভর্তি বসত্মা নিয়ে উক্ত স্থানে গেলেও ভাঙ্গনের পার্শ্ববর্তী বাড়ির মালিকদের আপত্তির মুখে মেরামত সম্ভব হয়নি। ইউপি চেয়ারম্যান মিলন বখতকে ওই বাড়ির মালিকের সাথে বৈঠক করে জানানোর দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।
অপরদিকে ইউপি চেয়ারম্যান মিলন বখত এ প্রতিবেদককে জানান, নির্বাহী প্রকৌশলী ঘটনাস্থলে আসেননি। লোক পাঠিয়ে আমাকে ও স্থানীয় ইউপি সদস্যকে বলেছেন বাঁধটি মেরামতের জন্য। খরচ হিসেবে কিছু টাকা দেওয়ার চেষ্টা করবেন বলে তিনি জানিয়েছেন। গত শনিবার সকাল থেকে অবিরাম বর্ষণ চললেও রোববার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত উক্ত স্থানে বাঁধ মেরামতের কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত