শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ২ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

সিলেটে বিভাগে একমাত্র নারী মেয়র প্রার্থী খালেদা



download (1)শায়েস্তাগঞ্জ সংবাদাতা : হবিগঞ্জের শায়েস্তাগঞ্জ পৌরসভায় মেয়র পদে নির্বাচন করছেন খালেদা বেগম। সিলেট বিভাগে মেয়র পদে তিনিই একমাত্র নারী প্রার্থী। জয়ের ব্যাপারে শতভাগ আশাবাদী।
খালেদার (৩৭) বাড়ি হবিগঞ্জ সদর উপজেলার ভাগনিপাড়া গ্রামে। তিনি পেশায় গৃহিণী। তাঁর স্বামী সাহাবুদ্দিন পেশায় বাসচালকের সহকারী। সারাদেশের সঙ্গে সিলেট বিভাগের চার জেলায় ১৬টি পৌরসভায় এবার নির্বাচন হচ্ছে ৩০ ডিসেম্বর। খালেদা ছাড়া এ অঞ্চলে আর কোনো নারী মেয়র পদপ্রার্থী না থাকায় তাঁকে নিয়ে ভোটারদের বেশ কৌতূহল।
খালেদা নির্বাচনী মাঠে এবারই প্রথম নন। তিনি এর আগে ২০০৪ সালে শায়েস্তাগঞ্জ পৌরসভার ৪, ৫ ও ৬ নম্বর ওয়ার্ডে সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর হিসেবে নির্বাচিত হয়েছিলেন। গত পৌর নির্বাচনে সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে মাত্র ৫৯ ভোটের ব্যবধানে পরাজিত হন তিনি। তবে এবার জয়ী হওয়ার স্বপ্ন দেখছেন। তিনি বলেন, জীবন চলার পথে তিনি অনেক লাঞ্ছনা-বঞ্চনার শিকার হয়েছেন। নারীরা সাধারণত অন্যায়ের প্রতিবাদ করতে পারে না। মুখ বন্ধ করে থাকে। এ সীমাবদ্ধতার বাঁধ তিনি ভেঙে দিতে চান।
পঞ্চম শ্রেণি পর্যন্ত পড়াশোনা করা খালেদা আরও বলেন, তিনি যখন প্রথম নির্বাচন করেন, অনেকেই তাঁকে নিয়ে টিপ্পনী কেটে বলেছিলেন, পাঁচটির বেশি ভোট পাবেন না। অথচ সে সময় তিনি একজন মেয়র প্রার্থীর সমপরিমাণ ১ হাজার ৭০৩ ভোট পেয়ে জয়ী হয়েছিলেন। তিনি বলেন, ‘আমি একজন দিনমজুরের মেয়ে ছিলাম। এখন পরিবহন শ্রমিকের স্ত্রী। আমি সাধারণ মানুষকে ভালোবাসি। আমার প্রতিও মানুষের অনেক ভালোবাসা আছে। এলাকার অসহায় নারীরা সব সময় আমার পাশে থাকবেন।’
খালেদা আরও বলেন, এবার দলীয় নির্বাচন হওয়ার কারণে তিনি ন্যাশনাল পিপলস পার্টির (এপিপি) টিকিটে ভোটে দাঁড়িয়েছেন। এই দলের হয়ে তিনি এবার মনোনয়ন জমা দিয়েছেন।
এই পৌরসভায় মেয়র পদে প্রার্থী মোট সাতজন। এর মধ্যে আওয়ামী লীগের ছালেক মিয়া, বিএনপির বর্তমান মেয়র ফরিদ আহমেদ।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত