বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

বিষাক্ত চিনিতে হুমকিতে জনস্বাস্থ্য



222নিউজ ডেস্ক: বাংলাদেশে বিষাক্ত ‘ঘন চিনি’র খাবার ছড়িয়ে পড়ছে। মিষ্টি, সন্দেশ, দই, আইসক্রিম, কেকসহ রসনাতৃপ্তির নানা উপকরণে সহজে এবং কম খরচে মিষ্টি স্বাদ আনার জন্য তাতে এখন বিষাক্ত যৌগ সোডিয়াম সাইক্লামেট মেশানো হচ্ছে।
বিষাক্ত সোডিয়াম সাইক্লামেটকে আরও ভয়ংকর করে তুলছে তাতে মেশানো ম্যাগনেসিয়াম সালফেট সার। এ ভেজাল যৌগ নিমন্ত্রণ জানাতে পারে ক্যান্সারকেও।
গতকাল আনন্দবাজার পত্রিকার এক প্রতিবেদনে এমন ভয়ংকর তথ্য উঠে এসেছে।
পত্রিকাটির প্রতিবেদনে বলা হয়, সোডিয়াম সাইক্লামেট নামের যৌগ বাংলাদেশে ‘ঘন চিনি’ নামে পরিচিত। এ যৌগ চিনির চেয়ে ৫০ গুণ বেশি মিষ্টি।
অর্থাৎ, ১ কিলোগ্রাম চিনি যতটা মিষ্টি স্বাদ আনতে পারে, মাত্র ২০ গ্রাম সোডিয়াম সাইক্লামেটের পক্ষেই খাবারকে ততটা মিষ্টি করে তোলা সম্ভব। কিন্তু এ সোডিয়াম সাইক্লামেট ভয়ংকর বিষাক্ত। শরীরে ঢুকেই তা নানা বিষক্রিয়া শুরু করে। ফলে কিডনি, লিভারসহ নানা অঙ্গ বিকল হতে থাকে।
এমনকী ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনাও থাকে। তাই সোডিয়াম সাইক্লামেট বা ‘ঘন চিনি’ খাবারে মেশানো নিষিদ্ধ। বাংলাদেশ সরকার এ যৌগের আমদানিও বন্ধ করে দিয়েছে। কিন্তু তাতে সমস্যা থেমে থাকছে না। চোরা পথে ঢুকছে হাজার হাজার টন ঘন চিনি। অসাধু মিষ্টি ব্যবসায়ী ও বেকারি মালিকরা চিনির বদলে এ ঘন চিনিই ব্যবহার করছেন খাবারে।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত