সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৯ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

তিনি বাংলাদেশের স্বাধীনতা চাননি : তিনি পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হতে চেয়েছিলেন



12_109976নিউজ ডেস্ক :: মুক্তিযুদ্ধে শহীদের সংখ্যা নিয়ে বিরূপ মন্তব্য করায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সাজার দাবিতে গুলশানে অবস্থান কর্মসূচি পালন করছে বেশ কয়েকটি সংগঠন।

মঙ্গলবার বেলা সোয়া ১০টা থেকে গুলশান-২ নম্বর গোলচত্বরে সমবেত হতে থাকেন বিভিন্ন সংগঠনের নেতা-কর্মীরা। একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি শাহরিয়ার কবিরের নেতৃত্বে প্রায় দুই হাজার নেতা-কর্মী সেখানে জড়ো হন।
গুলশান-২ নম্বর গোলচত্বর থেকে তারা খালেদা জিয়ার গুলশানের বাসভবন ঘেরাওয়ের জন্য যেতে চাইলে পুলিশ বাধা দেয়। পুলিশি বাধার কারণে তারা গোলচত্বরে বসেই অবস্থান কর্মসূচি পালন করছেন।

এদিকে বিএনপি চেয়ারপারসেন বাসার সামনে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, উল্লেখ্য, ২১ ডিসেম্বর বাংলাদেশ ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিশনে জাতীয়তাবাদী মুক্তিযোদ্ধা দল আয়োজিত এক আলোচনা সভায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া বলেছেন যে, ‘আজকে বলা হয় এত লাখ শহীদ হয়েছে, এটা নিয়েও অনেক বিতর্ক আছে।’
বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমানের নাম উল্লেখ না করে খালেদা জিয়া বলেন, তিনি বাংলাদেশের স্বাধীনতা চাননি। তিনি পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হতে চেয়েছিলেন। জিয়াউর রহমান স্বাধীনতার ঘোষণা না দিলে মুক্তিযুদ্ধ হত না।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত