মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ১০ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

অধ্যাপক রেজাউল হত্যায় গ্রেফতার রাবি শিক্ষার্থীর মৃত্যু



3নিউজ ডেস্ক :: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের অধ্যাপক ড. এএফএম রেজাউল করিম সিদ্দিকী হত্যা মামলায় গ্রেফতার শিবির নেতা হাফিজুর রহমান মারা গেছেন।

আজ ভোর পৌনে ৫টার দিকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন তিনি মারা যান। রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারের জেল সুপার শফিকুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

মৃত হাফিজুর রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের লোক প্রশাসন বিভাগের শিক্ষার্থী ও মহানগরীর ১৯নং ওয়ার্ড ছাত্রশিবিরের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। তার মরদেহ বর্তমানে হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে।

রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারের জেল সুপার শফিকুল ইসলাম জানান, শিবির নেতা হাফিজুর রহমান আগে থেকেই রক্ত স্বল্পতা রোগে আক্রান্ত ছিলেন। পরে গত ১৭ই মে কারাগারে অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপতালে পাঠানো হয়।

এরপর থেকে তিনি হাসপাতালের প্রিজনসেলে চিকিৎসাধীন ছিলেন। আজ ভোরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। আইনি প্রক্রিয়া শেষে তার মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে বলে জানান তিনি।

এদিকে, মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মহানগর ডিবি পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউস সাদিক জানান, গত ২৮ এপ্রিল দুপুরে আটক হাফিজুর রহমানকে এই মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে রাজশাহী মহানগর ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে (১) হাজির করা হয়।

এ সময় তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সাত দিনের রিমান্ডের আবেদন করা হয়। পরে শুনানি শেষে আদালতের বিচারক মোকসেদা আজগর তার বিরুদ্ধে চার দিনের রিমান্ড মাঞ্জুর করেন। তাকে চারদিন ডিবি কার্যালয়ে রেখে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে কারাগারে পাঠানো হয়েছিল বলে জানান তিনি।

প্রসঙ্গত, ২৩ এপ্রিল সকাল পৌনে ৮টার দিকে মহানগরীর শালবাগান এলাকায় নিজ বাড়ি থেকে মাত্র ১০০ গজ দূরে ড. এএফএম রেজাউল করিম সিদ্দিকীকে কুপিয়ে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা।

এ ঘটনায় অজ্ঞাত দুর্বৃত্তদের আসামি করে ওইদিন বিকেলে নিহতের ছেলে রিয়াসাত ইমতিয়াজ সৌরভ বাদী হয়ে বোয়ালিয়া থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলাটি পরে ডিবিতে স্থানান্তর করা হয়।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত