সোমবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

প্রাণভিক্ষা: সময় চেয়েছেন মীর কাসেম



full_231584525_1472620407নিউজ ডেস্ক: মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত জামায়াত নেতা মীর কাসেম আলী রাষ্ট্রপতির কাছে প্রাণভিক্ষা চাওয়া নিয়ে সময় চেয়েছেন। এর আগে মীর কাসেম আলীকে তার রিভিউ আবেদন খারিজের রায় পড়ে শোনায় কারা কর্তৃপক্ষ।

বুধবার সকাল সাড়ে ৭টায় গাজীপুরের কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগারে মীর কাসেম আলীকে তার রিভিউ আবেদন খারিজের রায় পড়ে শুনানো হয়।

এরপর তাকে রাষ্ট্রপতির কাছে প্রাণভিক্ষা সংক্রান্ত বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি এ নিয়ে সময় চান। কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার-২ এর জেল সুপার প্রশান্ত কুমার বনিক এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি জানান, রিভিউ আবেদন খারিজের রায় পড়ে শুনানোর পর কাসেম আলীকে কিছুটা চিন্তিত দেখিয়েছে। তার চোখে মুখে উদ্বেগ লক্ষ্য করা গেছে।

প্রশান্ত কুমার বনিক বলেন, রাষ্ট্রপতির কাছে মার্সি পিটিশন করবেন কি না এ সংক্রান্ত বিষয়ে জানতে চাইলে মীর কাসেম আলী সময় চান। তার এ সময় চাওয়ার বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হবে।

এর আগে মঙ্গলবার সকালে তিনি রেডিওর মাধ্যমে রিভিউ খারিজ সংক্রান্ত রায় শোনেন।

মঙ্গলবার রাত ১২টা ৪৮ মিনিটে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগার থেকে মীর কাসেম আলীর রিভিউ খারিজ সংক্রান্ত রায়ের কপি গাজীপুরে কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার-২ এ পৌঁছে দেয়া হয়। রাত অনেক বেশী হওয়ায় মীর কাসেম আলীকে তা পড়ে শুনানো হয়নি। বুধবার সকাল সাড়ে ৭টায় আনুষ্ঠানিক ভাবে তাকে রায় পড়ে শুনানো হয়।

৬৩ বছর বয়সী মীর কাসেম আলী কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগারের ফাঁসির কনডেম সেলে বন্দি রয়েছেন। গ্রেফতারের পর ২০১২ সাল থেকে তিনি এ কারাগারে রয়েছেন।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত