বুধবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

ব্রিটেনে মুক্তিযোদ্ধা মারা গেলে লাশ পাঠানোর খরচ বহন করবে বাংলাদেশ হাইকমিশন



0-1যুক্তরাজ্য প্রতিনিধি:: ব্রিটেনে বসবাসরত কোনো মুক্তিযোদ্ধা সেদেশে মারা গেলে তার মরদেহ দেশে পাঠানোর যাবতীয় খরচ লন্ডনের বাংলাদেশ হাইকমিশন থেকে বহন করা হবে বলে জানিয়েছেন হাই কমিশনার মো. নাজমুল কাওনাইন। শুক্রবার লন্ডনের বাংলাদেশ হাই কমিশন থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বৃহস্পতিবার হাই কমিশনে আয়োজিত এক সভায় এ কথা জানান লন্ডন মিশনের নতুন হাইকমিশনার নাজমুল কাওনাইন।
ব্রিটেনে বসবাসরত বাংলা প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় কর্মরত সাংবাদিকদের সম্মানে ওই পরিচিতি সভা ও নৈশ ভোজ আয়োজন করা হয়। এতে নাজমুল কাওনাইন বলেন, “মুক্তিযোদ্ধারা আমাদের গৌরব। তাদেরকে বিনম্র শ্রদ্ধা জানাই। ব্রিটেনে বসবাসরত কোনো মুক্তিযোদ্ধা মারা গেলে তার মরদেহ দেশে পাঠানোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।”
তিনি আরও বলেন, বাংলায় জিসিএসই এবং ‘ও’ লেভেল পরীক্ষায় যারা ভালো ফলাফল করবে তাদেরকেও মূল্যায়ন করা হবে। এছাড়া একজন কর্মকর্তাকে শিক্ষার জন্য হাইকমিশনে দায়িত্ব দেওয়া হবে।
গত ২৮ অক্টোবর যুক্তরাজ্যের বাংলাদেশ হাইকমিশনে হাইকমিশনার হিসেবে দায়িত্ব নেন নাজমুল কাওনাইন। দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকে যুক্তরাজ্যে বসবাসরত বিশাল বাংলাদেশি কমিউনিটির সঙ্গে যোগাযোগ স্থাপনের অংশ হিসেবে সাংবাদিকদের সঙ্গে ওই পরিচিতি সভার আয়োজন বলে মন্তব্য করেন তিনি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশে অবাধ তথ্য প্রবাহ ও মতামত প্রকাশের স্বাধীনতা বিরাজমান মন্তব্য করে হাইকমিশনার বলেন, বর্তমান সরকার সাধারণ মানুষের তথ্য অধিকার নিশ্চিত করার লক্ষ্যে ইতোমধ্যে তথ্য অধিকার আইন কার্যকর করেছে, যা বিশ্বের বিভিন্ন দেশে প্রশংসা পেয়েছে।
যুক্তরাজ্যে বিশাল বাংলাদেশি কমিউনিটির জন্য দেশের শিল্প, সাহিত্য ও সংষ্কৃতি বিকাশে বাংলা ভাষায় প্রকাশিত স্থানীয় প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়াগুলো বিশেষ ভূমিকা পালন করে আসছে মন্তব্য করে তাদের প্রশংসা করেন হাইকমিশনার কাওনাইন।
লন্ডন হাইকমিশনের প্রেস সচিব নাদীম কাদিরের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত পরিচিতি সভায় লন্ডন-বাংলা প্রেস ক্লাবের প্রেসিডেন্ট নবান উদ্দিন ও সাধারণ সম্পাদক মো. এমদাদুল হক চৌধুরী উপস্থিত ছিলেন।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত