বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

মাধবপুরে দুর্বৃত্তদের হামলায় ৮ পুলিশসহ আহত ৯



হবিগঞ্জের মাধবপুরে ডাকাতি মামলার আসামি ধরতে গিয়ে দুর্বৃত্তদের হামলায় ৮ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে। পুলিশের গুলিতে গলায় গুলিবিদ্ধ রশিদ নামের এক ব্যক্তিকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ছাড়াও গুরুতর আহত এক এএসআই ও দুই পুলিশ সদস্যকে মাধবপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

মঙ্গলবার দিবাগত রাতে উপজেলার শিবজয়নগর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

মাধবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোকতাদির হোসেন পিপিএম জানান, উপজেলার বাঘাসুরা ইউনিয়নের সাতপাড়িয়া গ্রামের চান মিয়ার ছেলে একাধিক মামলার গ্রেফতারি পরোয়ানার আসামি তৌহিদ (২৯)কে গ্রেফতার করতে মাধবপুর থানার এসআই মমিনুল ইসলামের নেতৃত্বে একদল পুলিশ শিবজয়নগর গ্রামে একটি বাড়িতে অভিযান চালায়। এ সময় তৌহিদের নেতৃত্বে ১৫/১৬ জনের একদল দুর্বৃত্ত পুলিশের উপর দেশিয় অস্ত্র নিয়ে হামলা চালায়।

এই হামলায় এএসআই মাহবুব, এএসআই রায়হান, এএসআই নাজমুল, এএসআই সুখলাল, পুলিশ সদস্য নিপেশ চন্দ্র ধর, জামাল উদ্দিন, আরিফ ও ডালিম আহত হয়। এ সময় পুলিশ আত্মরক্ষার্থে ২ রাউন্ড গুলি ছোড়ে।

পুলিশের গুলিতে রশিদ মিয়া (৩২) গুলিবিদ্ধ হয়।

আহত কনস্টেবল আরিফ, ডালিম ও এএসআই মাহবুবকে মাধবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ সত্যপ্রিয় গ্রামের তৌহিদ(২৯), মাহফুজ মিয়া(৫০), তাহের মিয়া(৩০), আলমগীর(২৬), বাবুল মিয়া(৩০) ও গুলিবিদ্ধ রশিদ (৩২) কে গ্রেফতার করে।

পুলিশের উপর হামলা ও কর্তব্য কাজে বাধা ও অস্ত্র ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টার অভিযোগে এস আই মমিনুল ইসলাম বাদী হয়ে তৌহিদকে প্রধান আসামি করে ৬ জনের নাম উল্লেখ করে আজ্ঞাত ৭/৮জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন।

এদিকে পুলিশের গুলিতে আহত রশিদ মিয়াকে গুরুতর অবস্থায় রাতেই পুলিশ হেফাজতে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। রশিদের পরিবারের দাবী তার অবস্থা সংকটাপন্ন।

এ ঘটনার পর এলাকাবাসীর মধ্যে আতঙ্ক বিরাজ করছে। গ্রেফতার এড়াতে পুরুষ শূন্য হয়ে পড়েছে শিবজয়নগর গ্রাম।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত