সোমবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

রাজনগরে অপহৃত শিশু কুড়িগ্রাম সীমান্ত থেকে উদ্ধার, মামা আটক



বিশেষ প্রতিনিধি:: রাজনগরে আপন মামা কর্তৃক অপহৃত স্কুল ছাত্রী রিমি বেগম (১১) অপহরণকারী মামা আখলিছ মিয়াকে (৩০) কুড়িগ্রাম সীমান্ত থেকে আটক ও রিমিকে উদ্ধার করেছে ওই এলাকার ডিবি পুলিশ। রাজনগর থানা পুলিশের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে ডিবি পুলিশ তাদেরকে আটক করে। আটক মামা আখলিছ মিয়া ও অপহৃত শিশু রিমি বেগমকে রাজনগরে নিয়ে আসার জন্য রাজনগর থানার এসআই আজিজুর রহমানের নেতৃত্বে একদল পুলিশ কুড়িগ্রাম গেছে।
পুলিশ ও শিশুর পরিবার সূত্রে জানা যায়, কাপড় কিনে দেয়ার কথা বলে রাজনগর উপজেলার কামারচাক ইউনিয়নের খাসপ্রেমনগর গ্রামের ইলাল মিয়ার মেয়ে রিমি বেগম (১১) ও তার ভাই হুসাইন মিয়াকে (১৩) তাদেরই মামা উপজেলার মনসুরনগর ইউনিয়নের তারাহরলামু গ্রামের মৃত আকিল মিয়ার ছেলে আখলিছ মিয়া (৩০) গত শনিবার বিকালে মৌলভীবাজার শহরে নিয়ে আসে। সন্ধ্যার পর শিশু রিমির ভাই হুসাইনকে তার মায়ের খালা রাজিবুন বেগমকে শহরে নিয়ে আসার জন্য সদর উপজেলার বলিয়ারভাগ গ্রামে পাঠিয়ে দেয়। এ সুযোগে মামা আখলিছ মিয়া রিমিকে অপহরণ করে নিয়ে পালিয়ে যায়। এ ব্যাপারে রাজনগর থানায় শারমিন বেগম লিখিত অভিযোগ দেন।
এ অভিযোগের প্রেক্ষিতে পুলিশ তদন্ত শুরু করে। এরই মাঝে মামা আখলিছ মিয়া ৩ জুলাই সোমবার সকালে রিমির এক আত্মীয়কে ফোন করে মুক্তিপন হিসেবে ২০ হাজার টাকা বিকাশে করার জন্য ফোন করে এবং একটি বিকাশ নম্বর দেয়। বিষয়টি তদন্ত কর্মকর্তাকে জানানো হয়। এর প্রেক্ষিতে বিকালে একটি বিকাশ নাম্বারে টাকা পাঠানোর ব্যবস্থা করা হয়। পরে রাজনগর থানা পুলিশের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে কুড়িগ্রাম সীমান্ত থেকে ওই এলাকার ডিবি পুলিশ মামা অখলিছ মিয়া আটক ও ভাগ্নি রিমি বেগম আটক করে। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা রাজনগর থানার এসআই আজিজুর রহমানের নেতৃত্বে একদল পুলিশ কুড়িগ্রামের দিকে রওয়ানা হয়েছে।
রাজনগর থানার অফিসার ইনচার্জ শ্যামল বণিক জানান, কুড়িগ্রাম সীমান্ত থেকে অপহরণকারী মামাকে আটক ও শিশু রিমিকে উদ্ধার করা হয়েছে। রাজনগরে নিয়ে আসার জন্য পুলিশ কুড়িগ্রামের দিকে রওয়ানা হয়েছে।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত