মঙ্গলবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

হবিগঞ্জে ‘অপহৃত’ টমটম চালকের আত্মসমর্পণ!



নিউজ ডেস্ক :: হবিগঞ্জ শহরতলীর পশ্চিম ভাদৈ এলাকা থেকে নিখোঁজের ১২ দিন পর খোঁজ মিলেছে বেলাল হোসেন (২৬) নামে এক টমটম অটোরিক্সা চালকের। ১৯ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার বিকেলে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব-৯) কাছে আত্মসমর্পণ করেন তিনি।

বেলাল চুনারুঘাট উপজেলা জিকুয়া গ্রামের হাজী আব্দুল গফুরের ছেলে।

র‌্যাব-৯’র কমান্ডার এএসপি মো. কফিল উদ্দীন জানান, গত ৭ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার রাত ৯টার দিকে শহরতলীর পশ্চিম ভাদৈ এলাকা থেকে নিখোঁজ হন বেলাল। তার পরিবারের লোকজন বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজির এক পর্যায়ে পশ্চিম ভাদৈ এলাকায় অটোরিক্সাটি খুঁজে পায়।

পরে বেলালকে অপহরণ করা হয়েছে দাবি করে তার স্ত্রী রোজিনা আক্তার হবিগঞ্জ সদর থানায় একটি মামলা করেন। মামলার পরিপ্রেক্ষিতে পুলিশ বেলালকে উদ্ধারে অভিযানে নামে। পুলিশ তাকে উদ্ধার করতে ব্যর্থ হলে রোজিনা বিষয়টি নিয়ে র‌্যাব-৯ এর দ্বারস্থ হন।

এর পরিপ্রেক্ষিতে র‌্যাব-৯ এর সিপিসি-২ শ্রীমঙ্গল ক্যাম্পের একটি আভিযানিক দল অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বিমান চন্দ্র কর্মকার এর নের্তৃত্বে এএসপি মো. কফিল উদ্দীন শ্রীমঙ্গল থানা ও হবিগঞ্জ জেলার বিভিন্ন থানা এলাকায় অভিযান পরিচালনা করেন। কিন্তু বেলালের কোনো সন্ধান পাননি তারা।

এদিকে পুলিশ ও র‌্যাবের খোঁজাখুঁজির বিষয়টি জানতে পেরে মঙ্গলবার বিকেলে স্বেচ্ছায় র‌্যাবের কার্যালয়ে গিয়ে আত্মসমর্পণ করেন বেলাল। সে সময় বেলাল র‌্যাবকে জানান, তার বাবা ও ভাইদের সাথে পারিবারিক এবং টাকা পয়সার বিষয় নিয়ে দীর্ঘদিন যাবৎ মতবিরোধ ছিল। এ কারণে তিনি আত্মগোপন করেছিলেন। কিন্তু প্রশাসনের অভিযানের বিষয়ে জানতে পেরে তিনি আত্মসমর্পণ করেন।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত