বুধবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

৭ মার্চের ভাষণের স্বীকৃতির প্রতিক্রিয়ায় যা বললেন বিশিষ্টজনেরা



নিউজ ডেস্ক:: বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণ জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করে আমাদের স্বাধীনতা এনে দিয়েছে এবং এর মাঝে শুধু বাঙালির নয়, সমগ্র বিশ্বের শোষিত, বঞ্চিত, নিপীড়িত ও নির্যাতিত মানুষের কথা উঠে এসেছে। জাতির পিতার এ ভাষণকে ইউনেস্কো ঐতিহাসিক দলিল হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ার মাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর দেশপ্রেম, রাজনৈতিক দূরদর্শিতা ও মানুষের প্রতি তার গভীর মমত্ববোধেরই স্বীকৃতি দিয়েছে সংস্থাটি।

৩০ অক্টোবর সোমবার ইউনেস্কো বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণকে ঐতিহাসিক দলিল হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ায় দেশের সংস্কৃতি অঙ্গণের বিশিষ্টজনেরা এভাবেই তাদের প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছেন।

বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ অধ্যাপক ড. আনিসুজ্জামান বলেন, এটি আমাদের সকলের এবং বাংলাদেশের জন্য খুবই আনন্দের ও গৌরবের কথা। বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণ সেদিন জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করতে পেরেছিল বলেই এর সুফল আমাদের স্বাধীনতা এনে দিয়েছে।

বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক শামসুজ্জামান খান বলেন, ইউনেস্কোর এ স্বীকৃতি বাংলাদেশের ও বাংলাদেশের মানুষের জন্য এক অসাধারণ অর্জন। এ অর্জনের পেছনে বাংলা একাডেমির ভূমিকা রয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে বাংলা একাডেমিই বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ বই আকারে প্রকাশ করে ইউনেস্কোসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এবং বাংলাদেশে অবস্থিত বিদেশি হাইকমিশন ও দূতাবাসসমূহে প্রেরণ করেছে।

শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকী বলেন, স্বীকৃতিটি বেশ বিলম্বে এসেছে। তারপরও এ সংবাদ বাংলাদেশ ও বাংলাদেশের মানুষের জন্য খুবই আনন্দের ও গৌরবের। এটি কোনো সাধারণ ভাষণ ছিল না উল্লেখ করে তিনি বলেন, এ ভাষণে শুধু বাঙালির নয়, সমগ্র বিশ্বের শোষিত, বঞ্চিত, নিপীড়িত ও নির্যাতিত মানুষের কথা উঠে এসেছে।

বঙ্গবন্ধুর প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে লাকী বলেন, আন্তর্জাতিক এ স্বীকৃতি বঙ্গবন্ধুর দেখানো পথে চলার জন্য আমাদের দায়িত্ববোধ আরও বাড়িয়ে দিলো।

সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি গোলাম কুদ্দুছ বলেন, বঙ্গবন্ধুর এ ভাষণ বাংলাদেশসহ বিশ্বের জনগণের কাছে অলিখিতভাবে বহু আগেই স্বীকৃতি অর্জন করেছে। ইউনেস্কোর অফিসিয়ালি স্বীকৃতির মাধ্যমে ভাষণটি ইতিহাসে স্থান করে নিল।
তিনি বলেন, এ স্বীকৃতির মাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর দেশপ্রেম, রাজনৈতিক দূরদর্শিতা ও মানুষের প্রতি তার গভীর মমত্ববোধেরই স্বীকৃতি অর্জিত হলো।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত