শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ২ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

সুনামগঞ্জে চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা, শ্রমিক লীগ নেতা গ্রেফতার



সুনামগঞ্জ সংবাদদাতা:: সুনামগঞ্জ পৌর এলাকায় নবীনগরে চতুর্থ শ্রেণীর এক ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযাগে মলয় চন্দ (৩৫) নামের এক শ্রমিক লীগ নেতাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
গ্রেফতারকৃত শ্রমিকলীগ নেতা শহরের নবীনগর ধোপাখালী এলাকার মনিন্দ্র চন্দ’র ছেলে। সে জেলা শ্রমিক লীগের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য। নির্যাতিত ছাত্রী স্থানীয় একটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পড়াশোনা করে।
মামলা সূত্রে জানা যায়, রোববার রাতে পৌর এলাকার নবীনগরে বাদল দাসের বাড়ির পাশে নামকীর্তণ অনুষ্ঠান চলছিল। ঘর খালি রেখে বাদল দাসের পরিবারের লোকজন কীর্তনে চলে যান। বাদল দাসের পাশেই মলয় চন্দের বোনের বাড়ি। সেও কীর্তনে যায়। কীর্তন চলাকালে খালি বসতঘরে শ্রমিক লীগের নেতা মলয় চন্দ জোরপূর্বক এক চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। এর আগে ঐ ছাত্রীকে নাশতা খাওয়ানোর জন্য ওই বসতঘরে নিয়ে যায় কীর্তনে আসা একই এলাকার তার বিদ্যালয়ের বান্ধবী। বাদল দাসের খালি বসতঘরে ওই দুই ছাত্রীকে পেয়ে একজনকে ঝাপটে ধরে ধর্ষণের চেষ্টা চালায় মলয় চন্দ। এসময় অপর ছাত্রী দৌড়ে ঘর থেকে বেড়িয়ে এসে চিৎকার করলে স্থানীয়রা মলয় চন্দকে হাতেনাতে আটক করেন। স্থানীয়দের মাধ্যমে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে তাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।
পৌরসভার ১ নম্বর ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর সুজাতা রাণী রায় বলেন, খবর পেয়ে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে সত্যতা পাই, স্থানীয়রা মলয়ের ব্যাপারে এর আগেও এমন ঘটনা ঘটিয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন। ৪র্থ শ্রেণীর শিশুকে যৌন হয়রানি করার দায়ে তার মা নিজে বাদী হয়ে মামলা করেছেন। আমরা এমন ঘটনার পুনরাবৃত্তি চাই না, সেজন্য আইন তার সঠিক নিয়মেই চলবে বলে বিশ্বাস করি।
এ ব্যাপারে সদর মডেল থানার ওসি (তদন্ত) আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, শিশুটির মা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত