রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

ইউটিউবের বিকল্প হয়ে উঠার চেষ্টা ফেসবুকের!



তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক::নিউজ ফিড আপডেট করছে ফেসবুক। ইউজাররা যে যে ধরণের ভিডিও খোঁজে, সেই ধরণের ভিডিও আরও বেশি করে তাদের নিউজ ফিডে হাজির করানোর ব্যবস্থা চলছে। আসলে নিউজ ফিডের মধ্যেই আরও বেশি করে ভিডিও প্রোমোশনের ব্যবস্থা করছে ফেসবুক। ফলে ধারাবাহিক যে সব শো রয়েছে, তাতে সাধারণ মানুষ অনেক বেশি এনগেজড হবে। আসলে ইউটিউবের একটা বিকল্প হয়ে ওঠার চেষ্টা রয়েছে ফেসবুকের।

এখন ফেসবুকের নেটওয়ার্কে যে ধরণের বিজ্ঞাপন রয়েছে, সংস্থার দাবি, সেই ধরণটিকে পাল্টে ফেলতে চাইছেন তাঁরা। আমরা জানি যে এখন আমরা সেই ভিডিও গুলোই দেখতে পাই, যেগুলো আমাদের লাইক করা পেজ বা বন্ধুবান্ধবদের পেজে থাকে।

এবার থেকে ইউজারদের ইন্টারেস্ট বুঝে বিভিন্ন ভিডিও পেজে আসবে। কাজ করবে জটিল অ্যালগোরিদম। যদি আপনাদের মনে থাকে তো মাথায় আসবে, নিউজ ভিড ভ্যালু বলে একটি স্টেটমেন্ট ছিল ফেসবুকের। তাতে বলা ছিল, বন্ধুবান্ধব ও পরিবারের পোস্টগুলিই আগে আসবে আপনার নিউজ ফিডে।

গত আগস্টেই ফেসবুক একটা ভিডিও সার্ভিস চালু করেছে, নাম ওয়াচ। বর্তমানে তা ভক্স এবং ডিসকভারি কমিউনিকেশনের ভিডিও ফিড স্ট্রিম করে। ইউটিউবের মতো এবার ফেসবুকও চাইছে, গ্রাহকরা আরও বেশি করে ভিডিও সাবমিট করুন।

আমরা যে যে ভিডিও দেখা পছন্দ করি, আমাদের সার্চ হিস্ট্রি থেকে সেই সব ভিডিও খুঁজে বের করে, সেই ধরণের ভিডিওই আমাদের নিউজ ফিডে বেশি করে আনবে ফেসবুক। কোনও শো এর আগের এপিসোড দেখে থাকলে, পরের এপিসোডও আপনাআপনি চলে আসবে ফিডে।

ফেসবুক এখনও রোজ, গ্রাহক সংখ্যা বাড়িয়েই চলেছে। সেই সংখ্যা আরও বাড়াতে চায় তারা, মাধ্যম এই ভিডিও। আরেকটি বিষয় ঘোষণা করা হয়েছে, যা নিঃসন্দেহে ভিডিও দেখার হার বাড়াবে। তা হল কোনও ভিডিওর মাঝখানে আচমকা অ্যাড না ঢুকিয়ে দেওয়া। তিন মিনিট অন্তর অন্তর বিরক্তিকর বিজ্ঞাপনের অবসান ঘটাচ্ছে ফেসবুক। যে অসুবিধা আজকাল ইউটিউবে প্রবল।

ফেসবুক আরও জানিয়েছে, ২০১৮ সালে ওয়াচ পরিষেবায় অ্যাড রাখা যায় কি না তারা ভেবে দেখবে। ভিডিওর শুরুতে প্রি রোল অ্যাড হিসেবে যদি বিজ্ঞাপন থাকে, তাহলে খুব একটা অসুবিধা হওয়ার কথা নয়।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত