সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৯ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

পিডিবির নির্বাহী প্রকৌশলীর অপসারনের দাবীতে মৌলভীবাজারে মানববন্ধন



বিশেষ রিপোর্টার: বৈধ গ্রাহক হিসেবে নিয়মিত বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ থাকা সত্তেও গ্রাহকদের বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে হয়রানির অভিযোগে পিডিবির নির্বাহী প্রকৌশলী মোহাম্মদ আরাফাতের বিরুদ্ধে মানবন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে মৌলভীবাজার প্রেসক্লাব প্রাঙ্গনে পৌর শহরের ৮, ৯ ও ৬ নং ওয়ার্ডের পিডিবির দূর্ভোগগ্রস্থ গ্রাহকরা ঘুষখোর ও দূর্নীতিবাজ নির্বাহী প্রকৌশলী মোহাম্মদ আরাফাত এর অপসারনের দাবীতে ঘন্টাব্যাপী মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেন হয়রানির শিকার গ্রাহকরা।

প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন আ.স.ম সালেহ সোহেল, এস এম উমেদ আলী, সালেহ এলাহী কুটি, মানবজমিনের স্টাফ রিপোর্টার মু. ইমাদ উদ দীন, শেখ বুরহান উদ্দিন সোসাইটির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যন ও বিশিষ্ট সংগঠক এম এ মুহিব, দূর্জয় ক্লাবের সভাপতি মিরাজ চৌধুরী, মুমিন রাজা, সৈয়দ মোকারিম আলী, শাহ তৌফিক এলাহি তিয়াস প্রমুখ। পরে প্রধানমন্ত্রী বরাবরে জেলা প্রশাসকের কাছে স্মারক লিপি দেয়া হয়। হয়রানির শিকার গ্রাহকরা বলেন মৌলভীবাজার বিদ্যুৎ বিতরণ বিভাগের (পিডিবি) বৈধ গ্রাহক ও বিদ্যুৎ বিভাগের সকল নিয়ম কানুন মেনেই নিয়মিত বিল পরিশোধ করে তারা বিদ্যুতের সুবিধা ভোগ করছেন। সম্প্রতি বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের বিক্রয় ও বিতরণ বিভাগ মৌলভীবাজার এর নির্বাহী প্রকৌশলী মোহাম্মদ আরাফাত যোগদানের পর থেকে নানা ভাবে তাদেরকে হয়রানি করছেন। বিগত দিন গুলোতে বিদ্যুৎ বিভাগের কোন কর্মকর্তার কাছ থেকে কোন অসদ আচরণ কিংবা হেনেস্তার শিকার হননি তারা। ১৩ জুন ২০১৮ খ্রিস্টাব্দে কোন পূর্ব ঘোষণা ছাড়াই হঠাৎ শহরের ধরকাপন এলাকায় বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করার অভিযানে নামেন নির্বাহী প্রকৌশলী মোহাম্মদ আরাফাত।

এলাকায় উপস্থিত হয়ে কোন কারণ ছাড়া জোরপূর্বক ঈদের আগে ১০ জন গ্রাহকের সংযোগ বিচ্ছিন্ন করেন। সময় গ্রাহকদের সাথে উত্তেজিত হয়ে বাকবিতন্ডা করেন। এসময় তার সাথে থাকা কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা গোপনে মিটার মালিক-গ্রাহকদের বলেন সামনে ঈদ স্যারকে খুশি করেন তাহলে সংযোগ বিচ্ছিন হবে না। এই অফার যারা গ্রহণ করেন তাদের সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়নি। পরে বিক্ষোব্দ এলাকাসী ওই প্রকৌশলীকে ঘেরাও দিয়ে ঘটনাস্থলে আটকিয়ে রাখলে বিচ্ছিন্ন সংযোগ চালু করতে বাধ্য হন। তাছাড়া ভৌতিক বিল ও নতুন সংযোগ, লাইন মেরামত, মিটার সেনশন করতে নানা ভাবে উৎকোচ নেওয়াসহ তার বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ করেন প্রতিবাদ সমাবেশে আসা গ্রাহকরা। তারা অবিলম্বে ঘুষখোর ও দূর্নীতিবাজ নির্বাহী প্রকৌশলী মোহাম্মদ আরাফাত এর অপসারনের দাবী করেন।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত