সোমবার, ১৫ জুলাই ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৩১ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

চাঁদা নিয়ে কথা কাটাকাটি, গণধোলাইয়ে যুবক নিহত



স্টাফ রিপোর্টারঃ

মৌলভীবাজার শহরতলীর হিলালপুর এলাকায় চাঁদা আদায় নিয়ে কথাকাটাকাটির জের ধরে উঠতি সন্ত্রাসী ও মাদক ব্যবসায়ী রুবেল মিয়া গণপিঠুনিতে নিহত হয়েছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শনিবার ১১ মে বিকেলে মৌলভীবাজার শহরতলীর হিলালপুর এলাকায় রুবেল মিয়া তার সহযোগী সহ ওই এলাকার রুমান, তুহিন, রুহিন ও বাবুলের সাথে চাঁদা আদায় নিয়ে কথাকাটির একপর্যায়ে উভয় গ্রুপের সংঘর্ষ শুরু হয়।

এসময় রুবেলের প্রতিপ্রক্ষ গ্রুপ ও স্থানীয় মানুষের গণপিঠুনিতে রুবেল গুরুতর আহত হয়। আহত রুবেলকে মৌলভীবাজার ২৫০ শয্যা হাসপাতাল নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে সিলেট এম.এ.জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করেন। ওসমানী হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে রুবেল মারা যায়।

রুবেলের মৃত্যুর খবর শোনে তার বড় ভাই পীর আজাদের নেতৃত্বে নিহত রুবেলের সহযোগীরা সিলেট-মৌলভীবাজার সড়কে চলাচলকারী গাড়ি এলোপাতাড়ি ভাংচুর শুরু করে। তাদের এই তান্ডব লীলা দেখে স্থানীয়দের মধ্যে আতংক সৃষ্টি হয়।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। নিহত রুবেল শহরতলীর হিলাল পুর এলাকার মৃত ছইদ উল্লাহর পুত্র। উঠতি বয়সী সন্ত্রাসী রুবেলের নেতৃত্বে একটি বাহিনী রয়েছে।

এছাড়াও স্থানীয় সূত্র জানিয়েছে তার বিরুদ্ধে মাদক, ছিনতাই, চুরি, ছিনতাই সহ একাধিক অভিযোগ রয়েছে।

মৌলভীবাজার সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাশেদুল ইসলাম নিহতের সত্যতা স্বীকার করে বলেন, “জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৩ জনকে আটক করা হয়েছে। পুলিশের অভিযান অব্যাহত আছে। এ বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।”

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত