বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

উৎসবমুখর ছিল কার্ডিফ



ডিএমবি ডেস্ক:: 

বাংলাদেশী সমর্থকদের উপস্থিতিতে কেনিংটন ওভালের মত কার্ডিফের সোফিয়া গার্ডেন্সও উৎসবমুখর হয়ে উঠেছিল। কার্ডিফে আজ স্বাগতিক ইংল্যান্ডের বিপক্ষে লড়াই করেছে বাংলাদেশ। ম্যাচটি শুরু হয় স্থানীয় সময় সকাল সাড়ে ১০টায়। এ ম্যাচকে সামনে রেখে আগে ভাগেই সোফিয়া গার্ডেন্সে জড়ো হতে থাকেন বাংলাদেশের সমর্থকরা।

মাশরাফি-সাকিব-মুশফিকদের জার্সি পরে, মাথায় জাতীয় পতাকা বেঁধে, গালে বাংলাদেশের পতাকা এঁকে, ব্যানার-ফেস্টুন নিয়ে সোফিয়া গার্ডেন্সের আশপাশ উৎসবমুখর করে তোলেন সমর্থকরা। বাংলাদেশ-বাংলাদেশ-মাশরাফি-সাকিব ধ্বনিতে ইংলিশ সমর্থকদের চোখ রাঙ্গানিতে পড়ে যান বাংলাদেশের সমর্থকরা।

ওয়েলসের রাজধানী কার্ডিফে রয়েছে বাংলাদেশীদের বসবাস। বিশেষভাবে রিভারসাইডে পাশেই থাকা নিনিয়ান পার্ক রোর্ডে বাংলাদেশের বসবাসের সংখ্যা বেশি। তবে মাঠে শুধুমাত্র কার্ডিফের বসবাসরতরাই নয়, বাংলাদেশ-ইংল্যান্ড ম্যাচ দেখার জন্য লন্ডন, বার্মিংহাম, ম্যানচেস্টার, বিস্ট্রলসহ আরও অনেক শহর থেকে বাংলাদেশকে সমর্থন যোগাতে গিয়েছিলেন সমর্থকরা।

কার্ডিফে থাকা একজন সর্মথক জানান, ‘এখানে যখনই বাংলাদেশের ম্যাচ থাকে, সবগুলোই দেখার চেষ্টা করেন। ২০১৭ সালে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচও দেখেছি।’

গতকাল ম্যাচ নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে ইংল্যান্ডের অধিনায়ক ইয়োইন মরগান বলেছিলেন, ‘বাংলাদেশের দর্শকদের নিয়ে চিন্তায় আছে ইংল্যান্ড।’ ইংল্যান্ডের অধিনায়কের চিন্তা আরও বেড়ে গেল, যখন গ্যালারি ভর্তি হয়ে উঠলো লাল-সবুজের পতাকা ও জার্সিতে।

মাশরাফি জার্সি পড়ে আসা ১০ বছর বয়সী এক ক্ষুদে সমর্থক বলেন, ‘আমি মাশরাফিকে খুব পছন্দ করি, ঢাকার মিরপুরে মাশরাফির খেলা দেখেছি। এখানেও মাশরাফির খেলা দেখবো। সাকিবও ভালো খেলে।’
কেনিংটন ওভালের মত আগামীর প্রতিটা খেলায় বাংলাদেশের সমর্থকরা মাঠে গিয়ে খেলোয়াড়দের সাহস জোগাবেন এটাই সবাই প্রত্যাশা করছেন।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত