বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১ কার্তিক ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

কার্ডিফ শহিদ মিনার উদ্বোধনে প্রধানমন্ত্রীর অপেক্ষায় ওয়েলসবাসী, দেখেছেন প্রটোকল অফিসার



নিজস্ব প্রতিবেদক::

বৃটেনের ওয়েলসের ঐতিহ্যবাহী কার্ডিফ শহরে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে ইন্টারন্যাশনাল মাদার ল্যাংগুয়েজ মনুমেন্ট বা শহীদ মিনার। এখন ওয়েলবাসী অপেক্ষা করছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার। বিশেষ করে বাঙালীরা আশা করছেন নিজ দেশের রাষ্ট্রনায়ক ঐতিহ্যবাসী শহীদ মিনার এসে উদ্বোধন করবেন। ইতেমধ্যেই প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত প্রটোকল অফিসার-২ আবু জাফর রাজু শহীদ মিনারটি পরিদর্শন করেছেন।

গত ২১ শে ফেব্রয়ারি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন করে ওয়েলসবাসী নব ইতিহাসের সূচনা করেছেন। কার্ডিফ কাউন্টি কাউন্সিলের প্রদত্ত ঐতিহ্যবাহী গ্রেইঞ্জমোর পার্কের জায়গায় বৃটেনের ওয়েলসের কমিউনিটির এই স্বপ্নের শহীদ মিনার মাথ উচু করে দাড়ালো। এর জন্য নির্ধারিত ফি পাঁচ হাজার পাউন্ড দিয়ে প্রতিষ্ঠাতা ট্রাষ্টি, এক হাজার পাউন্ড দিয়ে লাইফ মেম্বার, পাঁচ শত পাউন্ড দিয়ে জেনারেল মেম্বার ও এক শত পাউন্ড দিয়ে ফ্রেন্ডস অব মনুমন্ট হয়ে গর্বিত ইতিহাসের অংশীদার হয়েছেন অনেকে।

দীর্ঘ ১৩ বছরের অক্লান্ত পরিশ্রম ও কমিউনিটির প্রচেষ্টায় ওয়েলসের ইতিহাসে কার্ডিফ শহরের প্রথম শহীদ মিনারটি নির্মিত হলো। ২০০৭ সালে একটি শহীদ মিনার নির্মাণের প্রথম উদ্দ্যোগ নেওয়া হয়েছিলো।

এই প্রজেক্ট বাস্তবায়নে মনুমেন্ট ফাউন্ডার ট্রাষ্ট কমিটির চেয়ারম্যান এম আনোয়ার আলী, ডেপুটি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সেরুল ইসলাম. জেনারেল সেক্রেটারী মোহাম্মদ মকিস মনসুর, ট্রেজারার আনহার মিয়া, কাউন্সিলার দিলওয়ার আলীসহ অসংখ্য ট্রাস্টির অক্লান্ত পরিশ্রমে এটি বাস্তবায়ন হলো।

এছাড়াও বাংলাদেশ সরকার পক্ষ থেকে প্রজেক্ট বাস্তবায়নে প্রায় ৬৬ হাজার পাউন্ড অনুদান দিয়ে সহযোগীতা করা হয়েছে। বিদেশে সরকারের এরকম অনুদান এই প্রথম বলে জানা গেছে।

এবিষয়ে ট্রাষ্ট কমিটির জেনারেল সেক্রেটারী মোহাম্মদ মকিস মনসুর বলেন, “এই মহতি প্রজেক্ট বাস্তবায়নে অনুদান দিয়ে সহযোগীতা করার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, শেখ রেহেনা, বৃটেনের বাংলাদেশের হাইকমিশনার হ্যার এক্সেলেন্সি সাইদা মুনা তাসনিম, বাংলাদেশের পররাষ্ট ্রমন্ত্রণালয়েল প্রতি কৃতজ্ঞতা ও অভিনন্দন জানাচ্ছি। কার্ডিফ শহীদ মিনার উদ্বোধনের জন্য প্রধানমন্ত্রী দেশরতœ শেখ হাসিনার তারিখ ও সময়ের জন্য অতি আগ্রহে অপেক্ষায় রয়েছেন বৃটেনের ওয়েলসবাসী। প্রধানমন্ত্রী দেশরতœ শেখ হাসিনা এখন চিকিৎসার জন্য লন্ডন অবস্থান করছেন। প্রধানমন্ত্রী যখনই সময় দিবেন তখনই আমরা কার্ডিফ শহীদ মিনার আনুষ্ঠানিক ভাবে উদ্বোধন করার প্রস্তুতি নেওয়া হবে। এখন দেখার বিষয় কবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কার্ডিফে আসছেন। কবে হবে ওয়েলসবাসীর অপেক্ষার অবসান।

ইতিমধ্যেই লন্ডনে সফররত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রটোকল অফিসার-২ আবু জাফর রাজু বৃটেনের ওয়েলসের রাজধানী কার্ডিফ শহরের শহীদ মিনার পরিদর্শন করে ফুলেল শ্রদ্ধাঞ্জলি প্রদান করেছেন। নেতৃবৃন্দের শহীদ মিনার উদ্বোধনের জন্য ওয়েলসবাসী অপেক্ষায় রয়েছেন এমন প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রীর প্রটোকল অফিসার-২ আবু জাফর রাজু বলেন, আমি গিয়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে আপনাদের এই চমৎকার প্রজেক্ট এর বিস্তারিত বিবরণ তুলে ধরবো। এইবার না পারলেও আগামীতে প্রধানমন্ত্রী এসে শহীদ মিনার উদ্বোধন করার সম্ভাবনা রয়েছে বলে তিনি আশ্বাস দেন।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত