শুক্রবার, ৯ এপ্রিল ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ২৬ চৈত্র ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

মৌলভীবাজার সাবেক ছাত্রলীগের ইন্টারন্যাশনাল ম্যাসেঞ্জার গ্রুপের উদ্দ্যোগে রাজনগর উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা প্রয়াত আছকির খাঁন স্মরণে শোক সভা অনুষ্ঠিত..।




বদরুল মনসুর.
মৌলভীনাজার জেলার রাজনগর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ৭১ এর বীর মুক্তিযোদ্ধা প্রয়াত মোহাম্মদ আছকির খাঁন এর স্মরণে মৌলভীবাজার জেলার সাবেক ছাত্রলীগের ইন্টারন্যাশনাল ম্যাসেঞ্জার গ্রুপের উদ্দ্যোগে অতিসম্প্রতি এক ভ্যাচ্যুয়াল শোক সভা অনুষ্টিত হয়েছে। মৌলভীবাজার জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক সোহান আহমদ টুটুলের সভাপতিত্বে এবং মৌলভীবাজার জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ সভাপতি রায়হান আহমদ ও সাবেক ছাত্রনেতা রুপম আহমদ এর যৌথ পরিচালনায় অনুষ্টিত শোক সভায় নাহিদ আহমেদ. মোহাম্মদ মকিস মনসুর.নজরুল ইসলাম অকিব, মুজিবুর রহমান জসিম , আব্দুল ওয়াহিদ বাবুল, নীলু রানা, রুহুল আমীন রুহেল, আখলাকুর রহমান, ফয়জুর রহমান, আবু মোকাররম চৌধুরী অটন, মুহিত আফজল, রাধা কান্ত ধর, শাহ শাফি কাদির. সালাম বখ্স, মোহিদ রহমান, মোঃ মোহাইমিন পারভেজ, এম কে আহমেদ বাদল, আমানুর রহমান রায়হান, মোহাম্মদ এস এস দুলাল এবং আখতারুজ্জামান খাঁন জাকির সহ মৌলভীবাজার জেলার সাবেক ছাত্র নেতৃবৃন্দরা বক্তব্য রাখেন।
এখানে উল্লেখ্য যে
বীর মুক্তিযোদ্ধা আছকির খাঁন স্বাধীনতা সংগ্রামের প্রাক্ষালে ভারতের কৈলাশহরে শেখ মনির অধীনে বিএলএফ মুজিব বাহিনীতে নিয়োগ প্রাপ্ত হয়ে প্রশিক্ষণ নিয়ে ৪নং সেক্টরের কৈলাশহর সাব সেক্টরে লেফটেনেন্ট ওয়াকিউজ্জামানের অধীনে যুদ্ধ করেন। দেশ স্বাধীনের পর তিনি আওয়ামীলীগের রাজনীতির সাথে জড়িয়ে পড়েন এবং পরবর্তীতে ১৯৭৪ সাল থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত রাজনগর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। বিগত ২০১৪ সালের উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে তিনি রাজনগর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। নিজ এলাকার শিক্ষা বিস্তারে ও সমাজ উন্নয়নে ৭১ এর বীর মুক্তিযোদ্ধা জনতার লিডার আছকির খাঁন ছিলন জাতির জনক বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আস্থাভাজন একজন আপাদমস্তক আওয়ামীলীগের কর্মীবান্ধব নেতা ছিলেন।
স্কুল জীবনেই বাংলাদেশ ছাত্রলীগের রাজনীতিতে হয়েছিলো যার সম্পৃক্ততা, অসাম্প্রদায়িক মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় সমৃদ্ধ শ্রদ্ধেয় জনপ্রিয় নেতা ও উদার হৃদয়ের মানুষ আছকির খান অত্যন্ত সাদাসিদা জীবনযাপন করতেন। নিরহঙ্কার ও সজ্জন এই মানুষটি দলমত নির্বিশেষে ছিলেন সকল শ্রেণির লোকের শ্রদ্ধাভাজন। উনার মৃত্যুতে মৌলভীবাজার জেলা তথা বাংলাদেশের অপূরণীয় ক্ষতি হয়েছে বলে এলাকাবাসী অভিমত ব্যক্ত করেছেন। স্কুল জীবনেই বাংলাদেশ ছাত্রলীগের রাজনীতিতে হয়েছিলো যার সম্পৃক্ততা ;অসাম্প্রদায়িক মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় সমৃদ্ধ শ্রদ্ধেয় জনপ্রিয় নেতা ও উদার হৃদয়ের মানুষ আছকির খান অত্যন্ত সাদাসিদা জীবনযাপন করতেন।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত