Thursday, November 23, 2017
সাব-রেজিস্ট্রার অফিসে ভুমি খেকো আক্কাছ বাহিনীর হামলা:আসামীদেরকে গ্রেফতার করার জন্য প্রশাসন এর প্রতি জোর দাবী » « ঢাকা সেনানিবাসে প্রধানন্ত্রী‘বাঙালি জাতিকে ধ্বংস করতেই জাতির পিতাকে হত্যা’ » « মৃত সন্তান প্রসব ঠেকাতে মায়েদের যে পরামর্শ দিলেন চিকিৎসকরা! » « চীনা প্রস্তাবে কিছুটা অস্বস্তিতে ঢাকা » « সুনামগঞ্জে ইভটিজিং’র দায়ে যুবকের ৬ মাসের কারাদন্ড » « জামালগঞ্জে শনি রউয়া বিলের জলমহালের উন্নয়ন প্রকল্প হাওয়া » « আব্দুল আজিজসহ ৬ আসামীর যুদ্ধাপরাধের রায় বুধবার » « ১১ ডিসেম্বর কংগ্রেসের সভাপতি হচ্ছেন রাহুল » « প্রকাশ্যে মূত্রত্যাগ করলেন ভারতের মন্ত্রী » « সিলেট জেলা ও মহানগর ছাত্রদলের কর্মসূচি পালিত

আনুষ্ঠানিকভাবে প্রস্তাব মিয়ানমারে যৌথ অভিযান চালাবে বাংলাদেশ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক::মিয়ানমার সীমান্তে ইসলামিক জঙ্গি এবং আরাকান আর্মির বিরুদ্ধে মিয়ানমারের নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে যৌথ অভিযান চালানোর প্রস্তাব দিয়েছে বাংলাদেশ। একইসাথে সীমান্তে নিরাপত্তাহীনতা কমিয়ে আনতে এবং পরিস্থিতি স্বাভাবিক করতে বাংলাদেশের পক্ষ থেকে মিয়ানমারের সহায়তা কামনা করা হয়েছে।

সোমবার (২৮ আগস্ট) বিকালে ঢাকায় নিযুক্ত মিয়ানমারের ভারপ্রাপ্ত রাষ্ট্রদূত অং মিনকে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে ডেকে নিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে এ প্রস্তাব জানানো হয়।

গত শুক্রবার (২৫ আগস্ট) ভোর রাতে আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মি (এআরএসএ) নামে একটি সংগঠনের ব্যানারে একদল সশস্ত্র ব্যক্তি রাখাইনের কয়েকটি পুলিশ চৌকিতে হামলা চালায় এবং ওই হামলায় ৮৯ জন নিহত হয় বলে দাবি করে মিয়ানমার কর্তৃপক্ষ।

এর পরপরই দেশটির সেনাবাহিনী পশ্চিম অঞ্চলের মংডু, বুতিডং এবং রাতেডং জেলাকে ঘিরে ফেলে কথিত সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করে। এসব এলাকায় প্রায় আট লাখ মানুষ বসবাস করে। সেনাবাহিনী ওই দিন সন্ধ্যা ৬টা থেকে সকাল ৬টা পর্যন্ত কারফিউ জারি করে।

মিয়ানমারে নতুন করে সহিংসতায় ছড়িয়ে পড়ায় শনিবার (২৬ আগস্ট) থেকে রোহিঙ্গারা আশ্রয়ের জন্য বাংলাদেশে প্রবেশের চেষ্টা করছে। কিন্তু বাংলাদেশ সরকার এবার রোহিঙ্গা প্রবেশ ঠেকাতে কঠোর অবস্থান নিয়েছে।

শনিবার থেকে সীমান্তে নিরাপত্তা বাহিনীর অতিরিক্ত সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে। অবৈধ অনুপ্রবেশের দায়ে অনেককে গ্রেফতার করে দেশে ফেরত পাঠানো হয়েছে। এ প্রেক্ষিতে সোমবার বিকালে মিয়ানমারের ভারপ্রাপ্ত রাস্ট্রদুত অং মিনকে এ প্রস্তাব দিয়েছে বাংলাদেশ।

বৌদ্ধ সংখ্যাগরিষ্ঠ রাখাইন রাজ্যে মিয়ানমারের ১১ লাখ রোহিঙ্গা বসবাস করে, যাদের বেশিরভাগই দরিদ্র এবং প্রচণ্ড বৈষম্যের শিকার। রোহিঙ্গারা প্রজন্ম থেকে প্রজন্মান্তরে রাখাইনে বসবাস করে আসলেও এই সংখ্যালঘু জাতিকে বাংলাদেশ থেকে যাওয়া অবৈধ অভিবাসী গণ্য করা হয়।

মিয়ানমারের সরকার রোহিঙ্গাদের রাষ্ট্রহীন করে রেখেছে। জাতিসংঘ মনে করে, মিয়ানমারের সামরিক বাহিনী রোহিঙ্গাদের ওপর যে দমনাভিযান চালায় তা জাতিগত নিধনের শামিল। তবে অং সান সুচি সরকার এ অভিযোগ ক্রমাগত নাকচ করে আসছে।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত

সর্বশেষ সংবাদ

November 2017
M T W T F S S
« Oct    
 12345
6789101112
13141516171819
20212223242526
27282930