Sunday, July 22, 2018
শ্রীমঙ্গলে ক্ষুদে ফুটবলারদের নিয়ে প্রীতিম্যাচ অনুষ্ঠিত » « এক যুগের চেয়ে এবার মৌলভীবাজারে এইচএসসিতে বেশি ফল বিপর্যয় » « সমাজ দার্শনিক কার্ল মার্কসের জন্ম দ্বিশত বার্ষিকী মৌলভীবাজারে পালিত » « আদমপুর ইউনিয়ন স্বাস্থ্যও পরিবারকল্যাণ কেন্দ্রে ন্যূনতম স্বাস্থ্যসেবা টুকুও নেই » « মৌলভীবাজারে যে কারণে এইচএসসিতে ফলাফল বিপর্যয় » « পিছিয়ে মৌলভীবাজার, সেরা সিলেট » « ডাকাতির প্রস্তুতিকালে বড়লেখায় অস্ত্রসহ ২ ডাকাত আটক » « বান্ধবীর বাল্যবিয়ে ভাঙল মৌলভীবাজারের তিন কিশোরী » « মৌলভীবাজারে পাসের হার ৫৫ দশমিক ২৫ শতাংশ » « মৌলভীবাজারে ফুলের ব্যাপক চাহিদা থাকলেও নেই বাণিজ্যিক চাষাবাদ

বন্যা পরিস্থিতির অবনতি, শহরের কিছু অংশ প্লাবিত

নিজস্ব রিপোর্টার: মনু নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় মৌলভীবাজারের বন্য পরিস্থিতির আরও অবনতি হয়েছে। শনিবার দিবাগত রাতে নদীর প্রতিরক্ষা বাঁধ ভেঙে নতুন করে মৌলভীবাজার পৌরসভার বড়হাট এলাকা প্লাবিত হয়েছে। এতে পানিবন্দী হয়ে দুর্ভোগে পড়েছেন হাজার হাজার মানুষ। এছাড়া জেলার অন্যান্য এলাকার বন্যা পরিস্থিতি আগের মতোই দেখা যাচ্ছে। জেলার বিভিন্ন উপজেলায় বন্যায় পানিতে ডুবে আজ রবিবার সকাল পর্যন্ত ৪ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

এদিকে, মনু নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় আরও এলাকা নতুন করে প্লাবিত হওয়ার আশঙ্কা করছেন এলাকাবাসী। যে কোন সময় বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধের রাজনগর উপজেলার ভাঙ্গারহাট এলাকায় নতুন করে ভাঙন দেখা দিতে পারে বলে এলাকাবাসীর মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে। স্থানীয়রা ভাঙন ঠেকানোর সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।

শনিবার দিবাগত রাত ২টার দিকে সরেজমিনে দেখা যায়, শহরবাঁধ ভেঙে মৌলভীবাজার শহরতলীর বড়হাট এলাকা প্লাবিত হয়ে পানি এসে ঠেকেছে শহরের কুসুমবাগ রহমান ফিলিং স্টেশন পর্যন্ত। প্লাবিত হচ্ছে পৌরসভার বরহাট ছাড়াও কুসুমবাগ, বড়কাপন ও যোগীডর এবং সদর উপজেলার হিলালপুর ও শেখেরগাঁও।

এদিকে, রাজনগর উপজেলার বন্যা কবলিত কামারচাক, টেংরাবাজার ও মনসুরনগর ইউনিয়ন এলাকা সরেজমিন ঘুরে দেখা গেছে, কামারচাক ইউনিয়নের ৪২টি গ্রামের সবকটি তলিয়ে গেছে। মানুষের বাড়িঘরে কোথাও গলা পানি আবার কোথাও ঘরের চাল ছুঁই ছুঁই। এরমধ্যেই অনেকে চুরি-ডাকাতির ভয়ে নিজের বাড়িঘরে অবস্থান করছেন।

বন্য পরিস্থিতি মোকাবেলায় প্রশাসনের কর্মীরা তৎপর থাকলেও আতঙ্কে মালামাল নিয়ে এদিক-ওদিক ছুটোছুটি করছেন এলাকাবাসী। এলাকাজুড়ে বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন রয়েছে। অনেক এলাকায় ত্রাণ পৌঁছায়নি বলে অভিযোগ করেছেন এলাকাবাসী।

এদিকে, শনিবার বন্যার পানিতে ডুবে ৪ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। এর মধ্যে কমলগঞ্জে ৩ জন এবং কুলাউড়া উপজেলায় একজনের মৃত্যু হয়েছে। এসব উপজেলায় পানিবন্দী হয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছেন হাজার হাজার মানুষ।

মৌলভীবাজার পাউবো নির্বাহী প্রকৌশলী রণেদ্র শংকর চক্রবর্তী বলেন, তিনদিন ধরে বিপদসীমার ওপরে পানি থাকায় বাঁধ ফেটে বেশ বড় জায়গাজুড়ে ভাঙন দেখা দিলেও মূল শহরকে প্লাবিত করতে পারবে না বলে ধারণা করা হচ্ছে।

নিউজ সম্পর্কে আপনার বস্তুনিস্ঠ মতামত প্রদান করুন

টি মতামত

সর্বশেষ সংবাদ

July 2018
M T W T F S S
« Jun    
 1
2345678
9101112131415
16171819202122
23242526272829
3031