বৃহস্পতিবার, ১১ অগাস্ট ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ২৭ শ্রাবণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বিশ্বনাথে পল্লীতে দুই উপজেলাবাসির সংর্ঘষের অর্ধশতাধিক আহত



মোহাম্মদ আলী শিপন,বিশ্বনাথ থেকে : সিলেটের বিশ্বনাথে দুই উপজেলাবাসির মধ্যে গরু সবজি খেতে চড়ানোর জের ধরে সংর্ঘষে অর্ধশতাধিক আহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার বেলা ২টায় বিশ্বনাথ উপজেলার তবলপুর গ্রামবাসি ও সিলেট সদর উপজেলার মিরপুর গ্রামবাসির মধ্যে এ ঘটনা ঘটে। এতে উভয় পক্ষের লোকজন ও মধ্যস্থকারিসহ কমপক্ষে অর্ধশতাধিক আহত হন। গুরুতর আহতদের সিলেট ওসমানী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে জানাগেছে। এলাকাবাসি সূত্রে জানাগেছে, বৃহস্পতিবার বেলা ২টায় বিশ্বনাথ উপজেলার তবলপুর গ্রামের তৈয়মুছ আলীর টমোটো খেতে সিলেট সদর উপজেলার মিরপুর গ্রামের রহমান আলীর কয়েকটি গরু চড়ানো হয়। এনিয়ে উভয় পক্ষের মধ্যে কথাকাটাটি হয়। এরই এক পর্যায়ে উভয় পক্ষ দেশীয়-লাটি-সোটা নিয়ে সংর্ঘষের জড়িয়ে পড়ে। প্রায় দুই ঘন্টা ব্যাপি এ সংর্ঘষ চলে। উভয় পক্ষ ইট-পাটকেল নিক্ষোপ করতে থাকে। এতে উভয় পক্ষের অন্তন অর্ধশতাধিক আহত হন। পরে এলাকাবাসি অনেক চেষ্টা চালিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। এরপর খবর পেয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়। উভয় পক্ষের আহতরা হলেন-তবলপুর গ্রামের আশিক আলী (৩০), জয়রাজ (১৬), আফরোজ আলী (৩৪), মখাই মিয়া (৫৩), মঈনউদ্দিন (৪৫), কয়েছ মিয়া (২৫), জয়নাল মিয়া (১৮), তৈয়মুছ আলী (৫০), মিরপুর গ্রামের আহতরা হলেন, মনতর আলী (৩২), মছদ্দর আলী (৫০), আবদুল খালিক (৫০), আজিজুর রহমান (২৮), বুরহান উদ্দিন (২২), সেবুল মিয়া (২৮), সাইস্তা মিয়া (৩৩), ফজলু মিয়া (৭০), আবদুল গনি (৪০), আতাই মিয়া (৩৫), ছইল মিয়া (৫০), সিকন্দর আলী (৬০), ও মধ্যস্থকারি গবিন্দপুর গ্রামের জমসেদ আলী (৪০), মামুন (৩০), হোসেনপুর গ্রামের শাকির আহমদ (২৫)। বাকি আহতদের নাম জানাযায়নি। এরই মধ্যে গুরুতর আহতদের সিলেট ওসমানী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে এলাকাবাসি জানান। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত উভয় পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে। এঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানাযায়।
এব্যাপারে তবপুর গ্রামের তৈয়মুছ আলী বলেন, আমাদের সবজি খেতে মিরপুর গ্রামের রহমান আলীর গরু বেধে দেয়। এর কারন জানতে চাইলে তারা লাটি-সোঠা নিয়ে হামলা চালায়। এতে আমাদের বেশ কয়েকজন আহত হন।
মিরপুর গ্রামের রহমান আলী বলেন, তাদের জমিতে কোন ফসল না থাকায় গরু চড়ার হয়। এতে তারা সকালে আমার ছেলেক মারধর করে। দুপুরে এনিয়ে তাদের সাথে কথাকাটাটি হয়। এরই এক পর্যায়ে তারা দেশীয়-অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে হামলা করে।
বিশ্বনাথ থানার উপ-পরিদর্শক কালাম আহমদ বলেন, সংর্ঘষের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনি। তবে অভিযোগ পেলে তদন্তপূর্বক আইনি ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।