বুধবার, ৭ ডিসেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

তরুণ লেখক রুবেল আহমেদ এর ৫ম উপন্যাসের মোড়ক উন্মোচন ও প্রকাশনা অনুষ্ঠান ২০১৩



মেট্রো হোশ প্রতিনিধি : বই হচ্ছে শেখবার, জানবার ও জ্ঞান অর্জনের অন্যতম প্রধান মাধ্যম। দেশ ও জাতি গঠনে বইয়ের ভূমিকা সব চাইতে বেশি। শিক্ষা বা জ্ঞান অহরণ ছাড়া কোন দেশের বা কোন জাতির অগ্রগতি সম্ভব নয়। আর সহজ উপায়ে মানুষের মধ্যে শিক্ষা ও জ্ঞানের আলো ছড়াতে সমাজের জন্য বই অপরিহার্য।
রোববার ফ্রান্সের প্যারিসে মেট্রো হোশের একটি হলে অনুষ্ঠিত তরুণ লেখক রুবেল আহমেদ এর ৫ম উপন্যাস “বিধবার কান্না” বইয়ের মোড়ক উন্মোচন ও প্রকাশনা উৎসব অনুষ্ঠানে বক্তারা এ কথা বলেন। বক্তারা বলেন, লেখক রুবেল আহমেদ বিদেশের মাটিতে বসে বই রচনা করে নিজের সংস্কৃতিকে লালন করেছেন। যার উদাহরন খুবই বিরল।
কেননা ভিনদেশে বসে বাংলা সাহিত্য চর্চা বেশ কঠিন একটি কাজ। এরপরও তিনি উপন্যাস ও কবিতার ওপর তিনটি বই রচনা করেছেন। আলী বেলালের সভাপতিত্বে ও আজাদের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত এ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে আলোচনা রাখেন মেরী দা সেন্তুয়ার ফ্রান্স এর ডেপুটি মেয়র করিম বয়াম্রানে ।
জুনেদ আহমদের শুভেচ্ছা বক্তব্যের মাধ্যমে শুরু হওয়া অনুষ্টানে উন্মুক্ত আলোচনা রাখেন সাইফুল ইসলাম,নবকন্ঠ সম্পাদক আবু তাহির,চ্যানেল এস প্রতিনিধি নুরুল ওয়াহিদ,লেখক শাহারা খান ,প্যারিস ভিশন সম্পাদক আব্দুল মান্নান আজাদ,,গ্রেটার সিলেট ফ্রান্স এর সভাপতি হাজী হাবীব ,রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব সালেহ আহমদ চৌঃ, ডঃ মালেক ফারাজী ও “বিধবার কান্না “বইয়ের লেখক তরুন প্রতিভাবান সাহিত্যিক রুবেল আহমদ।
প্রধান অতিথি তার বক্তৃতায় বলেন, বিদেশ ভূমিতে অসখ্য বাঙ্গালী রয়েছে। এই বিশাল সংখ্যক জনগোষ্ঠি ভিন্ন সংস্কৃতি জগতে বসবাস করছে। বিশেষ করে এসব প্রবাসীর শিশুরা বেড়ে উঠছে অন্য সংস্কৃতির মধ্য দিয়ে। তাই, আগামীর প্রজন্মের কথা চিন্তা করে আমাদের নিজেদের সংস্কৃতিকে ধরে রাখতে হবে। নইলে বিদেশের মাটিতে বেড়ে ওঠা আমাদের শিশুরা নিজের সংস্কৃতি থেকে হারিয়ে যাবে।তিনি বাংলাদেশী কমিউনিটির ভুয়সী প্রসংশা করেন ও রুবেল এর উদ্যোগকে স্বাগত জানান।
তিনি বলেন, তরুণ লেখক বিদেশে শত ব্যস্ততার মধ্যেও পাঁচটি বই লিখে নিজ সংস্কৃতির অস্তিত্বতে সমৃদ্ধ করেছেন। উক্ত অনুষ্ঠানে কবি, সাহিত্যিক, সাংবাদিক, বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্টানের দ্বিতীয় পর্বে সাংস্কৃতীক অনুষ্টানের আয়োজন করা হয়।