শুক্রবার, ২ ডিসেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

সারাদেশে প্রার্থী পাচ্ছেন না এরশাদ



ershad_banglanews24_924677429

নিউজ ডেস্ক :: পৌর নির্বাচনে সারাদেশে প্রার্থী দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছিলেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। কিন্তু ৫৫টি পৌরসভায় কোনো প্রার্থীই খুঁজে পাচ্ছে না দলটি।

কতটি পৌরসভায় প্রার্থী পাওয়া যায়নি- এ প্রশ্নে দলটির কেউই সরাসরি মুখ খুলতে চাইছেন না। অনেকবার প্রশ্ন করার পর প্রেসিডিয়াম সদস্য এসএম ফয়সল চিশতী জানান, মনে হয় ৩০টির মতো শূন্য থাকবে।

ফয়সল চিশতী আরও জানান, ৮০ পৌরসভায় একজন করে মেয়রপ্রার্থী পাওয়া গেছে। আর ৯০টির মতো পৌরসভায় একাধিক প্রার্থী জাতীয় পার্টির মনোনয়ন চেয়েছেন। তাদের সঙ্গে বসে সমঝোতা করা হচ্ছে।

তার এ হিস‍াবের যোগফল দাঁড়ায় ১৭০। সে হিসেবে প্রায় ৬৫টি পৌরসভায় কোনো প্রার্থী নেই দলটির।

জাতীয় পর্টির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব ‍অ্যাডভোকেট রেজাউল ইসলাম ভূইয়া জানান, সোমবার পর্যন্ত ১৫১ পৌরসভায় মনোনয়ন চূড়ান্ত করা হয়েছে। একাধিক প্রার্থী থাকায় বুড়িচংসহ ২৯টি পৌরসভার বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। সমঝোতার মাধ্যমে একক প্রার্থী দেওয়ার জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা চলছে।

মঙ্গলবার (১ ডিসেম্বর) প্রার্থী ও সংশ্লিষ্ট পৌরসভার জেলা নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করে বিষয়টি চূড়ান্ত করা হবে বলেও জানান রেজাউল ইসলাম ভূইয়া।

দলীয় সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে বিদ্রোহী প্রার্থী হলে গঠনতন্ত্র মোতাবেক কঠোর শাস্তি দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন প্রেসিডিয়াম সদস্য ও ঢাকা মহানগর উত্তর জাতীয় পার্টির সভাপতি এসএম ফয়সল চিশতী।

মঙ্গলবার দুপুরে বনানীতে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের কার্যালয় ঘুরে জমজমাট অবস্থা দেখা গেছে। তারা বিভিন্ন উপদলে বিভক্ত হয়ে শলা-পরামর্শে ব্যস্ত। নিচতলার ড্রয়িংরুম ভর্তি প্রার্থী-সমর্থকে।

বেলা ১১টায় অফিসে আসেন হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। নিজের কক্ষে বসেই অপেক্ষমাণ প্রার্থীদের তালিকা চেয়ে নেন। ভেতরে প্রবেশ করে দেখা যায় মগ্ন হয়ে তথ্য যাচাই করছেন প্রার্থীদের।

এসময় এরশাদ বলেন, আজকের (০১ ডিসেম্বর) মধ্যেই অবশিষ্ট পৌরসভার বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত দেওয়া হবে।

জাতীয় পার্টির প্রার্থীরা অনেক ভালো করবে বলেও দাবি পার্টির চেয়ারম্যানের।