শুক্রবার, ২ ডিসেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

‘দাউদ সম্পর্কিত প্রশ্ন শরিফ সরকারকে করা উচিত’



full_759050948_1449992077

নিউজ ডেস্ক: পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ পার্টি পিটিআই’র প্রধান ইমরান খান ভারতের মোস্ট ওয়ান্টেড আন্ডারওয়ার্ল্ড ডন দাউদ ইব্রাহিম পাকিস্তানে থাকতে পারেন বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন ভারত সফরে গিয়ে। ইমরানের এ মন্তব্যে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফের অস্বস্তি বাড়বে বলে বিশ্লেষকদের মত।

পিটিআই প্রধান ইমরানের কাছে ভারতের একটি সংবাদসংস্থা দাউদ ঠিক কোথায় আছে- তা জানতে চান।

এর প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, ‘আমি সরকারে নেই। সুতরাং দাউদের হদিস জানি না। তবে এটুকু বলতে পারি, আমাদের দল পাকিস্তানের যে অঞ্চলে শাসন করে, সেই খাইবার পাখতুনখোয়ায় উনি নেই। দাউদ সম্পর্কে প্রশ্ন থাকলে তা শরিফ সরকারকে করা উচিত।’ ইমরানের বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে কোনো বিবৃতি দেয়নি নওয়াজ শরীফের সরকার।

রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের একাংশের মতে, প্রতিপক্ষ শরীফের উদ্দেশ্যে ইমরানের এই খোঁচা ভারতের পক্ষেও তাৎপর্যপূর্ণ। কারণ, খাইবার পাখতুনখোয়ায় দাউদের উপস্থিতি অস্বীকার করলেও ১৯৯৩ সালের মুম্বাই বিস্ফোরণ মামলায় প্রধান অভিযুক্ত যে পাকিস্তানে নেই, এমন কথা ইমরান বলেননি।

দাউদ প্রসঙ্গে উল্লেখযোগ্যভাবে যা ইসলামাবাদের সরকারি ভাষ্যের সম্পূর্ণ বিপরীত! কূটনীতিকদের একাংশ মনে করছেন, ইমরানের মতো একজন পাক রাজনীতিক ভারতে দাঁড়িয়ে দাউদ প্রসঙ্গে যা বলেছেন, তা শরীফ সরকারের ঘোষিত অবস্থানকেই প্রশ্নের মুখে ফেলে দিল।

এদিকে, নওয়াজ শরীফের সরকার বরাবরই দেশটিতে দাউদের উপস্থিতি অস্বীকার করে আসছে গত অক্টোবরেও ভারতে নিযুক্ত পাক হাইকমিশনার আব্দুল বসিত দাবি করেছিলেন, দাউদ পাকিস্তানে নেই। এমনকি ভারত সরকারও তার গতিবিধি সম্পর্কে নিশ্চিত নয়।

এর আগে গত অাগস্টে ভারতের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত দোভাল ইসলামাবাদের হাতে দাউদ সংক্রান্ত নথি তুলে দেবেন বলায় পাকিস্তান পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছিল, দাউদ সেখানে নেই।

পাকিস্তানে দাউদের একাধিক ঠিকানার হদিস পেয়েছেন বলে দাবি করেছেন ভারতীয় গোয়েন্দারা।

৮ ডিসেম্বর পাকিস্তান সফরে ভারতীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ দেশ দুটির মধ্যকার সম্পর্ক উন্নয়নের আভাস দিয়েছেন। এমনকি দেশ দুটির মধ্যকার শান্তি আলোচনা শুরুর আভাসও দিয়েছেন তিনি।