বুধবার, ১৭ অগাস্ট ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ২ ভাদ্র ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

সিলেট ৩ আসনের এমপি মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী’র মৃত্যুতে গ্রেটার সিলেট কাউন্সিল ইউকে’র ভার্চুয়াল শোক সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত।




সিলেট ৩ আসনের জননন্দিত সংসদ সদস্য মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী কয়েস এর মৃত্যুতে গ্রেটার সিলেট ডেভেলাপমেন্ট এন্ড ওয়েলফেয়ার কাউন্সিল ইন ইউকে (জিএসসি) এর উদ্যোগে ১১ মার্চ শুক্রবার এক ভার্চুয়াল শোক সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে।
জুম মিটিং এর মাধ্যমে অনুষ্ঠিত সভায় সভাপতিত্ব করেন জিএসসির কেন্দ্রীয় কমিটির চেয়ারপার্সন ব্যারিস্টার আতাউর রহমান ও উপস্থাপনায় ছিলেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক খসরু খান।
সভায় প্রয়াত সংসদ সদস্য মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী কয়েস এর কর্মময় জীবন নিয়ে স্মৃতি চারণ করেন মরহুমের ছোট ভাই চ্যানেল এস এর চেয়ারম্যান আহমদ উস সামাদ চৌধুরী জেপি, জিএসসি’র পেট্রন ড. হাসনাত এম হোসেইন এমবিই
জিএসসি’র পেট্রন কে এম আবু তাহের চৌধুরী, ইবিএফসিআই’র প্রেসিডেন্ট ড. ওয়ালী তছর উদ্দিন এমবিই, বাংলাদেশ ক্যাটারার্স এসোসিয়েশন (বিসিএ)’র প্রেসিডেন্ট এম এ মুনিম, ব্রিটিশ-বাংলাদেশ চেম্বার অফ কমার্সের ডাইরেক্টার মাহতাব মিয়া, বার্মিংহাম কমিউনিটি নেতা আব্দুল লতিফ জেপি টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিল এর প্রথম সাবেক নির্বাহী ডেপুটি মেয়র অহিদ আহমেদ.ও রাজনগর ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশন এর উপদেষ্টা মুক্তিযোদ্ধা এম এ মান্নান.
এছাড়াও বক্তব্য রাখেন জিএসসি এর কেন্দ্রীয় কমিটির ট্রেজারার সালেহ আহমদ, সাবেক কেন্দ্রীয় চেয়ারপার্সন মনছব আলী জেপি, জিএসসির সাবেক সেক্রেটারী মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দ আব্দুল কাইয়ুম কয়ছর, জিএসসি এর কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি মির্জা আছহাব বেগ, কেন্দ্রীয় সহসভাপতি ও সাউথ ইস্ট রিজিওনের চেয়ারপার্সন মোহাম্মদ ইছবাহ উদ্দিন, কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি এ এফ এম চুন্নু ও আশরাফ আহমেদ, আশরাফ আহমেদ, সাউথ ইস্ট রিজিওনের সাধারণ সম্পাদক ফজলুল করীম চৌধুরী, জিএসসি এর কেন্দ্রীয় জয়েন্ট সেক্রেটারী আহসানুজজামান আরিফ, কাউন্সিলার ফয়জুর রহমান, কাউন্সিলার ফারুক চৌধুরী, জিএসসির উইমেনস সেক্রেটারী কাউন্সিলার জোসনা ইসলাম, জিএসসির সাবেক কেন্দ্রীয় জয়েন্ট সেক্রেটারী মোহাম্মদ মকিস মনসুর বিশিষ্ট কমিউনিটি নেতা আলহাজ্ব মানিক মিয়া, জিএসসি টাইন সাইডের চেয়ারপার্সন আব্দুর রজ্জাক, মানিকুর রহমান গণি,
সাকিবুর রহমান চৌধুরী, ব্রিস্ট্রল বাথ এন্ড ওয়েস্ট বাংলাদেশ এসোশিয়েশনের সেক্রেটারী মোর্শেদ আহমদ, চ্যানেল এস রিপোর্টার ইব্রাহিম খলিল, জিএসসির সাউথ ওয়েস্ট রিজিওনের সভাপতি হেলাল তফাদার, জিএসসির ওয়েস্ট মিডল্যান্ডের সহ সভাপতি আব্দুল কাদির আবুল, ইস্ট মিডল্যান্ডের বিশিষ্ট কমিউনিটি নেতা আব্দুস শহীদ, জিএসসি নর্থ ইস্ট রিজিওনের সেক্রেটারী হাবিবুর রহমান রানা, জিএসসি স্কটল্যান্ড রিজিওনের চেয়ারপার্সন নুনু মিয়া, গোয়াইন ঘাট ওয়েলফেয়ারের সহ সভাপতি মাওলানা নাজিম উদ্দিন, জকিগঞ্জ ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশন ইউকের প্রেসিডেন্ট ও চৌধুরী এন্ড লস্কর ট্রাস্টের চেয়ারম্যান জুবের আহমেদ লস্কর, জিএসসি সাউথ ইস্ট রিজিওনের সহ সভাপতি যথাক্রমে মাওলানা রফিক আহমদ রফিক, তৌফিক আলী মিনার, জাহাঙ্গীর খান ও মামুনুর রশীদ, জিএসসির কালচারাল সেক্রেটারী হেলেন ইসলাম, জিএসসি সাউথ ইস্ট রিজিওনের ট্রেজারার সুফী সুহেল আহমদ, জিএসসি ইস্ট লন্ডন শাখার সভাপতি এম এ গফুর ও সেক্রেটারী আব্দুল মালিক কুটি, সাউথ ইস্ট রিজিওনের জয়েন্ট সেক্রেটারী মুহিব উদ্দিন চৌধুরী ও জয়েন্ট ট্রেজারার আবুল মিয়া, কেন্দ্রীয় সহ সাংগঠনিক সম্পাদক কাইয়ুম খান ফয়ছল, আব্দুর রজ্জাক, মুসলেহ উদ্দিন, সৈয়দ কবীর আহমদ, মোঃ নূরুল ইসলাম, জুবেল আহমদ বেলাল, শেখ ফারুক আহমদ, সাউথ ইস্ট রিজিওনের ইয়ুথ সেক্রেটারী আজম আলী, সালেহ আহমদ, নূর আহমদ, তাজ উদ্দিন প্রমুখ।
সভায় বক্তারা মরহুম মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরীর মৃত্যুতে গভীর শোক ও শোকসন্তপ্ত পরিবার-পরিজনদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়ে বলেছেন, মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী একজন গুণী ও আদর্শবান মানুষ ছিলেন। তাঁর মৃত্যুতে সিলেট তথা দেশের রাজনীতিতে একজন গুণী ও আদর্শবান রাজনীতিবিদ ব্যক্তিত্ত্বের শূন্যতা তৈরি হলো ।
এ ছাড়াও সভায় প্রয়াত সংসদ সদস্য মাহমদুস সামাদ চৌধুরী কয়েস এর কর্মময় জীবন নিয়ে আলোচনা করেন এবং তাঁর জনকল্যাণমূলক বিভিন্ন সামাজিক কর্মকান্ডের কথা উল্ল্যেখ করেন।
জিএসসি’র প্রতিষ্ঠাকালীন সময়ে `সামাদ’ পরিবার উল্লেখযোগ্য ভূমিকা পালন করেছেন বলে সভায় উল্লেখ করা হয়।
মাওলানা রফিক আহমদ রফিক এর পবিত্র কুরআন তেলাওয়াতের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সূচনা হয়। মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনা করে মোনাজাত পরিচালনা করেন বিশিষ্ট আলেম মাওলানা ফরিদ খান।

এখানে উল্লেখ্য যে সিলেট-৩ আসনের তিনবারের সাংসদ মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী মাত্র ৬৫ বছর বয়সে গত ১১ মার্চ বৃহস্পতিবার বিকেল পৌনে ৩ টার দিকে রাজধানীর ইউনাইটেড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেন। মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী কয়েস গত ১০ ফেব্রুয়ারি জাতীয় সংসদ ভবন প্রাঙ্গণে করোনা টিকা নেন।টিকা নেয়ার পর তাৎক্ষনিক কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা না গেলেও গত এক সপ্তাহ ধরে তিনি অসুস্থতা বোধ করতে থাকেন। ৭ মার্চ সিলেট থেকে তাকে ঢাকায় নিয়ে আসা হয়।তাকে ঢাকা বিমানবন্দর থেকে সরাসরি ইউনাইটেড হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়এবং মৃত্যুর আগ পযর্ন্ত তিনি সেখানেই চিকিৎসাধীন ছিলেন।
মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী কয়েস সিলেটের দক্ষিণ সুরমা ও ফেঞ্চুগঞ্জ এবং বর্তনান বালাগঞ্জ উপজেলার একাংশ নিয়ে গঠিত সিলেট -৩ সংসদীয় আসন থেকে ১৯৯৬ সালে প্রথম জাতীয় সংসদ সদস্য পদে এবং ২০০১ সালে একই আসনে আওয়ামীলীগের প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করেন।তবে এ দুটি নির্বাচনেই তিনি পরাজিত হন। ২০০৮ সালে আওয়ামীলীগের প্রার্থী হিসেবে জাতীয় সংসদ সদস্য পদে নির্বাচন করে প্রথমবারের মতো বিজয়ী হন এবং পরবর্তী সবকটি নির্বাচনে জয়লাভ করেন। মৃত্যুর আগ পযর্ন্ত তিনি এ আসনে নির্বাচিত জাতীয় সংসদ সদস্য ছিলেন।
তিনি সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের বর্তমান কমিটির সহ- সভাপতি ছিলেন। এছাড়াও তিনি শেখ রাসেল শিশু কিশোর পরিষদ প্রতিষ্ঠা কালীন সময় থেকে এ পর্যন্ত প্রায় ৩৫ বছর যাবত সংগঠনের মহাসচিব পদে দায়িত্ব পালন করেন।***************************************************
প্রেস বিজ্ঞপ্তির পক্ষে ; প্রেস এন্ড পাবলিক সিটি সেক্রেটারি জিএসসি ইন ইউকে.